Header Border

গাইবান্ধা মঙ্গলবার, ২০শে অক্টোবর, ২০২০ ইং | ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (হেমন্তকাল) ৩৪°সে
শিরোনাম :
৫ দফা দাবিতে গাইবান্ধায় ফারিয়ার কর্মবিরতি ও মানববন্ধন গাইবান্ধায় বিআরডিবির প্রশিক্ষণ সনদ, ঋণের চেক, গাছের চারা ও বীজ বিতরণ গাইবান্ধায় ডিডিবায়ো প্রোগ্রামের প্রশিক্ষকদের প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত সাদুল্লাপুরে তথ্য অফিসের সঙ্গীতানুষ্ঠান সাদুল্লাপুরে সাংবাদিকের উপর হামলার ঘটনায় প্রতিবাদ সভা সাদুল্লাপুরে সাংবাদিকের উপর মাদক ব্যবসায়ীর হামলা  কামারজানিতে ই-সেবা ক্যাম্পেইন প্রচারণায় মহিলা সমাবেশ খোলা কাগজ এর গাইবান্ধা প্রতিনিধি মিশুকের মাতার ইন্তেকাল সাদুল্লাপুরে বয়স্ক-বিধবা ও নিগৃহীত ভাতা’র আবেদন ১৬৯৭০ জনের ফুলছড়ি ইউনিয়নে মাসব্যাপী চলছে মুজিব শতবর্ষ ই-সেবা ক্যাম্পেইন

গাইবান্ধায় গ্যাসের সন্ধান!

গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলায় নলকূপ স্থাপনের সময় প্রাকৃতিক গ্যাসের সন্ধান পাওয়া গেছে। এ ঘটনা জানাজানি হলে বিভিন্ন লোকজন ওই বাড়ীতে গিয়ে ভীড় জমায়। পরে খবর পেয়ে গাইবান্ধা ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। তবে গ্যাস পাওয়ার আশায় সরকারি প্রতিষ্ঠান বাপেক্সকে কূপ খনন করার তাগিদ দিয়েছেন অনেকে।

গাইবান্ধা ফায়ার সার্ভিস, সাদুল্লাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার দুপুরে সাদুল্লাপুরের ফরিদপুর ইউনিয়নের মীরপুর গ্রামে আশরাফুজ্জামান সরকারের ছেলে গোলাম মাজহারুলের বাড়ীতে নলকূপ স্থাপন করছিলেন মো. রাঙ্গা মিস্ত্রি ও তার সহকর্মীরা। আয়রনমুক্ত পানি পেতে ২১২ ফুট নলকূপ মাটির গভীরে প্রবেশ করানোর পর রাঙ্গা মিস্ত্রির হাতে গ্যাসের চাপ অনুভূত হয় ও নলকূপের স্থাপনের জায়গায় জমে থাকা পানিতে বুদবুদ বের হতে থাকে।

বিষয়টি গ্যাস হতে পারে এমন ধারনা করে গোলাম মাজহারুল একটি লম্বা পাইপ নিয়ে আসেন ও নলকূপের মুখে লাগিয়ে পরীক্ষা করেন। এসময় পাইপের অপরপ্রান্তে বের হওয়া গ্যাসীয় চাপে আগুন লাগালে আগুন ধরে যায়। বিষয়টি মুহুর্তেই ছড়িয়ে গেলে বিভিন্ন লোকজন ভীড় জমাতে শুরু করে ওই বাড়ীতে। পরে খবর পেয়ে সাদুল্লাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. নবীনেওয়াজ গাইবান্ধা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সকে জানালে তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে।

নলকূপ মিস্ত্রী রাঙ্গা বলেন, নলকূপের পাইপ মাটির গভীরে প্রবেশের সময় নিচ থেকে উঠে আসা পানির সাথে গ্যাসের চাপ অনুভূত হয়। পরে বিষয়টি গ্যাস হতে পারে ধারনা করে বাড়ীর মালিক গোলাম মাজহারুলকে জানাই।

বাড়ীর মালিক গোলাম মাজহারুল বলেন, নলকূপ মিস্ত্রী রাঙ্গার হাতে গ্যাসের চাপ অনুভূত হলে আমাকে জানান। এসময় স্থাপন করা নলকূপের পাইপের মুখে প্লাস্টিকের পাইপ লাগিয়ে পরীক্ষা করে বুঝতে পাই এটি গ্যাস। পরে বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যানসহ কয়েকজনকে জানাই।

সাদুল্লাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. নবীনেওয়াজ বলেন, বিষয়টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের মাধ্যমে জানার পর গাইবান্ধা ফায়ার সার্ভিসকে জানাই। কিন্তু বিকেলে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে গ্যাস দেখতে পায়নি।

এ বিষয়ে গাইবান্ধা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপসহকারী পরিচালক মো. আমিরুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থলে গিয়ে পাইপের মাথায় আগুন লাগিয়ে আমরা গ্যাস পাইনি। তবে সকালের দিকে গ্যাস ছিল বলে জানায় ওই বাড়ীর লোকজন।

মো. আমিরুল ইসলাম আরও বলেন, অনেক সময় ভূগর্ভে দীর্ঘদিন ধরে পচনশীল উদ্ভিদ বা জৈব কিছু পঁচে গিয়ে গ্যাসের সৃষ্টি হয়। কিন্তু সেই গ্যাস মাটি ফেটে বের হতে পারে না। তাই নলকূপ স্থাপনের সময় হয়তো সেই গ্যাস বেরিয়ে এসেছে। যা অল্প পরিমাণে থাকায় আবার শেষও হয়ে গেছে।

তবে ওই নলকূপ স্থাপনের জায়গায় সরকারের খনিজ তেল-গ্যাস অনুসন্ধানকারী প্রতিষ্ঠান বাপেক্সেকে কূপ খনন করার প্রতি অনুরোধ জানান অনেকে।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

৫ দফা দাবিতে গাইবান্ধায় ফারিয়ার কর্মবিরতি ও মানববন্ধন
গাইবান্ধায় বিআরডিবির প্রশিক্ষণ সনদ, ঋণের চেক, গাছের চারা ও বীজ বিতরণ
গাইবান্ধায় ডিডিবায়ো প্রোগ্রামের প্রশিক্ষকদের প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত
সাদুল্লাপুরে তথ্য অফিসের সঙ্গীতানুষ্ঠান
সাদুল্লাপুরে সাংবাদিকের উপর হামলার ঘটনায় প্রতিবাদ সভা
সাদুল্লাপুরে সাংবাদিকের উপর মাদক ব্যবসায়ীর হামলা

আরও খবর