Header Border

গাইবান্ধা সোমবার, ২৬শে অক্টোবর, ২০২০ ইং | ১০ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (হেমন্তকাল) ২৯°সে
শিরোনাম :
বৈরী আবহাওয়ায় গাইবান্ধায় পানিতে ভাসছে ১২০০০ হেক্টর আমন ধান বৈরী আবহাওয়ায় জনজীবন বিপর্যস্ত, স্থবির ব্যবসা বানিজ্য বন্যায় ভাঙন সড়কে বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করলো গ্রামবাসী বৈরী আবহাওয়ায় গাইবান্ধায় আমন ধানসহ ফসলাদির ক্ষতির আশঙ্কা হাতির পিঠে ই-সেবার প্রচারণা সাদুল্লাপুরের সেই কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক মতিনকে অবশেষে অব্যাহতি সাদুল্লাপুরে ঘর ও সোলার দেওয়ার নামে অর্থ আদায়ের অভিযোগ সাদুল্লাপুরে অগ্নিকাণ্ডে ১০ পরিবারের ঘরবাড়ি ভস্মিভূত, ১৮ লক্ষাধিক টাকা ক্ষয়ক্ষতি গাইবান্ধায় দইয়ের বাটি তৈরী করে সফলতা পেয়েছে মজিদা ও মহিদুল গাড়ী ধোয়া-মোছার কাজ করা শ্রমিকরাই চালক হয় : সভাপতি কাজী মকবুল হোসেন

পোষাক কর্মীকে চলন্ত পিকআপভ্যানে পার্শ্ববিক নির্যাতন 

ঢাকার আশুলিয়া থেকে জামালপুরে আসার পথে পিকআপভ্যানে চেতনানাশক ওষুধ খাইয়ে পাশবিক নির্যাতনের পর চলন্ত পিকআপ থেকে ফেলে দেওয়া হয়েছে জামালপুরের এক পোশাক কর্মীকে।  সে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে মৃত্যৃর সঙ্গে লড়ছে। এ ঘটনায় এখনও কাউকে আটক করতে পারেনি আইনশৃঙ্খলাবাহিনী।

জানা গেছে, নির্যাতনের শিকার পোশাককর্মীর  বাড়ি জামালপুর সদর উপজেলার মির্জাপুর শাহবাজপুর গ্রামে। দরিদ্র পরিবারের ওই পোশাককর্মী ঢাকার আশুলিয়ার একটি গামেন্টন্সে কাজ করতো। গ্রামের বাড়িতে তার একটি শিশু সন্তান রয়েছে। ছুটিতে জামালপুরে যাওয়ার জন্য বাস ধরতে শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে সে আশুলিয়ার বাইপাইল এলাকায় যায় । সেখানের এক পিকআপ চালক নিজেকে জামালপুরের পরিচয় দিয়ে তাকে নিরাপদে বাড়ি পৌঁছিয়ে  দেওয়ার কথা বলে ভ্যানে তুলে।

জামালপুর থানার ওসি সালেমুজ্জামান বলেছেন, নির্যাতনের শিকার মেয়েটিকে যেহেতু সাগরদীঘি এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে তাই মামলা হবে ঘাটাইল থানায়। বিশিষ্ট মানবাধিকার নেত্রী সুলতানা কামাল এ ঘটনায় নিন্দা ক্ষোভ জানিয়ে বলেন, ধর্ষকরা ধরেই নিয়েছে তাদের কিছু হবেনা এই বিচারহীনতার কারণে দেশে একের পর এক ধর্ষণের ঘটনা ঘটেই চলছে।

নির্যাতনের শিকার পোশাককর্মী জানায়, রাস্তায় চালক, হেলপার ও আরেকজন লোক তাকে জোর করে জোস খাওয়ায়। এর পর সে আর কিছুই বলতে পারেনা। ঘাটাইলের সাগরদিঘি এলাকা থেকে স্থানীয়রা তাকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে মোবাইল ফোনে স্বজনদের খবর দেয়। পরে তার স্বজনরা তাকে এনে শনিবার দুপুরে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। গতকাল রাত ৭টার দিকে তার জ্ঞান ফিরতে শুরু করলেও ফের জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। হাসপাতালের সহকারি পরিচালক ডাঃ হাবিবুর রহমান ফকির বলেন, মেয়েটি পাশবিক নির্যাতনের শিকার হয়েছে তবে ভিকটিমের ভেজাইনাল সোয়াব পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। রির্পোট এলেই ধর্ষণের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।

নির্যাতিত পোষাককর্মীর মা (শিউলী বেগম) বলেন, আমরা গরীব, মেয়ের চিকিৎসা কিংবা মামলা কোন কিছুই করার ক্ষমতা আমাদের নেই।

মানবাধিকার সংস্কৃতি ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান সুলতানা কামাল সমকালকে বলেন, বিচার না হওয়ায় ধর্ষকরা ধরেই নিয়েছে তাদের কিছুই হবেনা। তাই  দেশে একর পর  এক বেড়েই চলছে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন। তিনি এ ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

বৈরী আবহাওয়ায় গাইবান্ধায় পানিতে ভাসছে ১২০০০ হেক্টর আমন ধান
বৈরী আবহাওয়ায় জনজীবন বিপর্যস্ত, স্থবির ব্যবসা বানিজ্য
বন্যায় ভাঙন সড়কে বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করলো গ্রামবাসী
বৈরী আবহাওয়ায় গাইবান্ধায় আমন ধানসহ ফসলাদির ক্ষতির আশঙ্কা
হাতির পিঠে ই-সেবার প্রচারণা
সাদুল্লাপুরের সেই কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক মতিনকে অবশেষে অব্যাহতি

আরও খবর